শিরোনামঃ
সোনারগাঁ আনন্দবাজারের ঝুঁকিপূর্ণ বেইলি ব্রিজ স্থায়ী সেতু নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন এমপি খোকা  নরসিংদীতে শিবপুরে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দেয়ার অভিযোগ ৫ সন্তানের বাবাকে পেতে শরীরে পেট্রোল ঢেলে আগুন প্রেমিকার! সাংবাদিক মাসুদের বিরুদ্ধে সেই দুর্ণীতিবাজ প্রধান শিক্ষকের জিডি নরসিংদীতে আখের চাহিদা ও দাম বেশি হওযায আখ চাষিদের মুখে সাফল্যের হাসি ফুটেছে আধুনিকতার ছোঁয়ায় হারিয়ে যাচ্ছে লাঙ্গল দিয়ে হাল চাষ ইলিশ ধরা বন্ধ থাকবে ৪ অক্টোবর থেকে ২২ দিন শিশু সন্তানকে হত্যার পর মায়ের আত্মহত্যা নরসিংদীতে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পাশে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করে কোটি টাকার বাণিজ্য ধানের ব্যাকটেরিয়াজনিত পাতা পোড়া রোগ

সোনারগাঁয়ে থানা থেকে পালিয়ে যাওয়া ডাকাত পুনরায় গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ


ফটো-সংগৃহীত

দেশের গর্জন প্রতিনিধি (নারায়ণগঞ্জ) সোনারগাঁ: নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে থানা থেকে পালিয়ে যাওয়া ডাকাত শুক্কুর আলীকে পুনরায় গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গতকাল (৯ সেপ্টেম্বর) বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮ টার দিকে কাঁচপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন, সোনারগাঁ থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত)  এসএম শফিকুল ইসলাম। গত মঙ্গলবার সকালে সোনারগাঁ থানার ডিউটি অফিসের কক্ষ থেকে সে পালিয়ে যায়।

এর আগে গত সোমবার রাত ১০ টায় উপজেলার বারদী ইউনিয়নের আলগীরচর এলাকায় ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ডাকাত সদস্য শুক্কুর আলীকে আটক করে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোর্পদ করে জনগণ। এসময় ডাকাতি কাজে ব্যবহৃত মোটর সাইকেল, মোবাইল ও অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।  ডাকাতির ঘটনায় আলগীরচর এলাকার মোকলেসুর রহমান বাদী হয়ে ওই দিন মঙ্গলবার সকালে সোনারগাঁ থানায় একটি মামলা  দায়ের করেন।

এ ঘটনায় আরো একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। এলাকাবাসী ও পুলিশ জানান, গত সোমবার রাত ১০টার দিকে উপজেলার বারদী ইউনিয়নের আলগীরচর এলাকায় ডাকাত সদস্য শুক্কুর আলীসহ ৫-৬ জনের একদল ডাকাত মোটর সাইকেল যোগে এসে ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছিল। এসময় এলাকার লোকজন টের পেয়ে আত্মচিৎকার করলে ডাকাত সদস্য শুক্কুর আলীসহ অন্যান্য ডাকাতরা পালিয়ে যায়।

পরে শুক্কুর আলীকে এলাকাবাসী ধাওয়া করে নোয়াগাঁও ইউনিয়নের লক্ষীবরদী এলাকা থেকে আটক করে গণ ধোলাই দেয়। এসময় অন্য ডাকাতরা পালিয়ে যায়। পরে আটককৃত শুক্কুর আলীকে এলাকাবাসী রাতেই পুলিশে সোর্পদ করে। এসময় পুলিশ ডাকাতিকাজে ব্যবহৃত একটি মোটর সাইকেল, নগদ টাকা, মোবাইল ও একটি চাইনিছ চাপাতি, ১ টি ছুরি উদ্ধার করে।

ডাকাত শুক্কুর আলী পুলিশের কাছে স্বীকার করে বলে, সোনারগাঁয়ে বারদী ইউনিয়নের গোয়ালপাড়ার মামুন ও চেঙাকান্দি গ্রামের জামাল তার সাথে ডাকাতি কাজে সহযোগিতা করছে। গ্রেপ্তারের পর সোনারগাঁ থানায় ডিউটি অফিসার লেখালেখির কাজে ব্যস্ত থাকায় সে সুযোগ বুঝে সকলের চোখ আড়াল করে সটকে পড়ে।

এলাকাবাসী আরো জানায়,  ডাকাত সদস্য শুক্কুর আলীকে রাত ১২টায় সোনারগাঁ থানায় নিয়ে আসার পর সকাল আটটায় ডিউটি অফিসারের কক্ষ থেকে পুলিশের চোখ ফাঁকি দিয়ে সে পালিয়ে যায়। এলাকাবাসীর দাবী, চেঙাকান্দি গ্রামের ডাকাত সর্দার জামাল বারদী ইউনিয়নের ৯ ওয়ার্ড দাইয়ান মেম্বারের ভাগীনা।

ডাকাত সরদার জামাল হোসেন ও ইয়ানুস কিছু দিন পূর্বেও অস্ত্রসহ উপজেলার নোয়াগাঁও ইউনিয়নের শেখকান্দী এলাকায় ডাকাতির প্রস্তুতিকালে গ্রেফতার হয়। সেখান থেকে জামিনে বের হয়ে আসার পরেও তাদের ডাকাতি কাজ থেমে নেই। তারা বারদী ও নোয়াগাঁও ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় ডাকাতি করে বেড়ায়। সোনারগাঁ থানার ওসি পরিদর্শক (তদন্ত) এসএম শফিকুল ইসলাম বলেন, পালিয়ে যাওয়া ডাকাতকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে আরো একটি মামলার প্রক্রিয়াধীন।

লাইক ও শেয়ার করে পাশে থাকুন..........
All rights reserved © 2021 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
Translate »