শিরোনামঃ
নরসিংদীতে শিবপুরে গ্রাম্য কবিরাজের গলাকাটা লাশ উদ্ধার ব্রাহ্মণবাড়িয়া কলাগাছের গোড়ায় পাওয়া শিশুটির মা শিক্ষিকা পারভীন নরসিংদীতে স্বাস্থ্য সহকারীদের অব্যাহত কর্মবিরতির কারণে টিকা না পেয়ে স্বাস্থ্যঝুঁকিতে শিশুরা নরসিংদীতে আশিরনগরের সিএসজি স্ট্যান্ডে চাঁদাবাজির সত্যতা কিছুটা স্বীকার করলেন নেতারা বিএনপি ক্ষমতায় যেতে চোরাগলি খুঁজছে: কাদের প্রতিবন্ধীদের আলাদাভাবে যত্ন নিবেন: ইকরামুল হক টিটু বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য শুধু প্রতিকৃতি নয় বাংলাদেশের প্রতিচ্ছবি আওয়ামী লীগ ও বিএনপি দেশের মানুষকে হতাশ করেছে: জিএম কাদের ফের করোনার নিয়ন্ত্রণ হারাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র, মৃত্যুতে রেকর্ড এমসি কলেজে গণধর্ষণ: ৮ ছাত্রলীগ কর্মীকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট
ফুলপুরে এক শিশুকে বলাৎকারের অভিযোগে আঃ রাজ্জাক

ফুলপুরে এক শিশুকে বলাৎকারের অভিযোগে আঃ রাজ্জাক মুন্সি আটক


ফটো-তপু রায়হান রাব্বি

তপু রায়হান রাব্বি, ফুলপুর (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি: ময়মনসিংহের ফুলপুর উপজেলার ১০ নং বওলা ইউনিয়নের বওলা বাজারে ১২ বছর বয়সী এক মাদ্রাসা ছাত্রকে বলাৎকার (সমকামী) এর অভিযোগে দায়ের করা মামলায় অভিযুক্তকে আটক করা হয়েছে।

আটককৃত আব্দুর রাজ্জাক মুন্সি (৫৫) উপজেলার বওলা ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের হাতীবান্ধা গ্রামের মৃত জব্বর আলীর ছেলে।

নির্যাতনের শিকার কারি ৪ নং ওয়ার্ডের বওলা গ্রামের। পুলিশ, পরিবার ও মামলা সূত্রে জানা যায়, অভিযুক্ত আব্দুর রাজ্জাক মুন্সি বওলা বাজারের মসজিদ সংলগ্ন মুদির দোকানে ভিকটিম মাঝে মধ্যে বিভিন্ন জিনিসপত্র ক্রয় করতে আসা যাওয়া করত।

গত (১৭ নভেম্বর) রাতে আসামি আব্দুর রাজ্জাক মুন্সি শিশুটিকে তার দোকানে গেলে বিস্কুটের প্রলোভন দিয়ে কৌশলে তার দোকানে নিয়ে শাটার বন্ধ করে দিয়ে বলাৎকার করে।

পরে তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে এবং এই শিশুটিকে উদ্ধার করে। এই ব্যাপারে নির্যাতনের শিকার শিশু কাউছারের বাবা মুজিবুর রহমান বাদী হয়ে অভিযুক্ত ব্যবসায়ী আব্দুর রাজ্জাক মুন্সীকে আসামি করে ফুলপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেছেন মামলা নং।

১৩/২০১১/২০২০। ফুলপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইমারাত হোসেন গাজী ও তদন্ত কর্মকর্তা এসআই সায়েদুল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, দুপুর ১২টার দিকে আটক আসামিকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার এবং লাইক করুন..
visitor counter
All rights reserved © 2020 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
Translate »