শিরোনামঃ
কওমী মাদরাসা লকডাউনের আওতামুক্ত রাখার দাবি হেফাজতের টাঙ্গাইলে দুই সন্তানের জননী মল্লিকা বেগমের আত্মহত্যা নরসিংদীতে করোনা মোকাবেলায় সংবাদকর্মী রুদ্র এর পক্ষ থেকে বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ জনকণ্ঠ ভবনের মূল ফটকে তালা, ভবনের সামনের রাস্তায় অবস্থান নিয়েছেন সাংবাদিকরা শার্শায় স্বাস্থ্য কর্মকর্তার খামখেয়ালীপোনায় ২য় ডোজ টিকা নিয়ে বিপাকে ভূক্তভোগীরা বার্সাকে হারিয়ে শীর্ষে রিয়াল চলমান করোনা নিষেধাজ্ঞা ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত চলবে মিয়ানমারের বাগো শহরে সামরিক বাহিনীর গুলিতে নিহত ৮০ ছাড়িয়েছে গজারিয়ায় জাটকাবাহী ট্রলার ও জাটকা সহ ৪ জন আটক, কারাদণ্ড করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দেননি খালেদা জিয়া
ফুলগাজীতে ধর্ষণের দায়ে ইউপি চেয়ারম্যান বহিষ্কার

ফুলগাজীতে ধর্ষণের দায়ে ইউপি চেয়ারম্যান বহিষ্কার


ফটো-সংগৃহীত

ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীর ফুলগাজী সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলামকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে। ধর্ষণের মামলায় আসামি হওয়ায় স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় এ সংক্রান্ত এক প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। ওই মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মো. আবু জাফর রিপন স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়। স্থানীয় সরকার বিভাগ ফেনীর উপ-পরিচালক ড. মোহাম্মদ মঞ্জুরুল ইসলাম প্রজ্ঞাপনের পত্রটি মঙ্গলবার বিকেলে পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন।

মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মো. আবু জাফর রিপন স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, ‘যেহেতু ফেনী জেলার ফুলগাজী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলামের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইন ২০০০ সংশোধিত ২০০৩ এর ধারায় ফুলগাজী থানা দায়েরকৃত মামলা নং-৩৪ জিআর নং ৩৫/১৮ তারিখ ১২ জুন ২০১৮ এবং নারী শিশু নির্যাতন মামলা নং-৪০/১৯ তারিখ ২৫ জুলাই ২০১৯ এর অভিযোগ পত্র বিজ্ঞ আদালত কর্তৃক গৃহীত হয়েছে এবং জেলা প্রশাসক ফেনী বর্ণিত ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে স্থানীয় সরকার ইউনিয়ন পরিষদ আইন ২০০৯ অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করেছেন।

যেহেতু ফেনী জেলার ফুলগাজী উপজেলার ১নং ফুলগাজী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলামের বিরুদ্ধে নারী শিশু নির্যাতন দমন আইনে ফুলগাজী থানায় দায়েরকৃত মামলা নারী শিশু মামলার অভিযোগপত্র বিজ্ঞ আদালত কর্তৃক গৃহীত হওয়ায় তার দ্বারা ইউনিয়ন পরিষদ ক্ষমতা প্রয়োগ প্রশাসনিক দৃষ্টিকোণে সম্ভব নয়।

এ মর্মে সরকার মনে করে ফুলগাজী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম সংগঠিত অপরাধ মূলক কার্যক্রম পরিষদের জনস্বার্থ পরিপন্থী বিবেচনায় স্থানীয় সরকার ইউনিয়ন পরিষদ আইন ২০০৯ এর ধারা ৩৪/১ অনুযায়ী উল্লেখিত ইউপি চেয়ারম্যানকে তার পদ থেকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হলো। প্রজ্ঞাপনে আরও বলা হয়, এ আদেশ যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমোদনক্রমে জনস্বার্থে জারী করা হলো এবং অবিলম্বে তা কার্যকর হবে।

ফুলগাজী সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম জানান, স্থানীয় সরকার বিভাগের উক্ত আদেশের বিরুদ্ধে তিনি স্বল্প সময়ের মধ্যে উচ্চ আদালতে রিট করবেন। আশা করছেন আদালত তার পক্ষে রায় প্রদান করবেন।

প্রসঙ্গত, পারিবারিক কলহের জেরে সালিশি বৈঠককে কেন্দ্র করে বিচারপ্রার্থী এক গৃহবধূ তার ৫ম শ্রেণি পড়ুয়া ভাগিনাকে নিয়ে ২০১৮ সালের ১২ এপ্রিল ফুলগাজী সদর ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ে যান।

তখন ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম কৌশলে ওই শিশুকে টাকা দিয়ে দোকানে পাঠিয়ে বিচারপ্রার্থী ওই নারীকে ধর্ষণ করেন। পরে নির্যাতিতা গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন স্বজনরা। এ ঘটনায় ধর্ষিতা নারীর শাশুড়ি হাজেরা বেগম বাদী হয়ে চেয়ারম্যান নুরুল ইসলামকে আসামি করে ফুলগাজী থানায় মামলা করলে পুলিশ ওই রাতে চেয়ারম্যানকে গ্রেপ্তার করে। বর্তমানে তিনি জামিনে রয়েছেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার এবং লাইক করুন..
visitor counter
All rights reserved © 2021 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
Translate »