পোড়া তেল ও মবিল প্রক্রিয়া করে রান্নার

পোড়া তেল ও মবিল প্রক্রিয়া করে রান্নার তেল তৈরি


ফটো-সংগৃহীত

গর্জন ডেস্কঃ রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকায় বিভিন্ন রেস্তোরাঁ ও চাইনিজ রেস্টুরেন্টে ব্যবহৃত পোড়া তেল এবং বিভিন্ন যানবাহনে ব্যবহৃত মবিল সংগ্রহের পর প্রক্রিয়াজাতের মাধ্যমে রান্নার তেল তৈরি করে আসছিল দোকানি খায়রুল ইসলাম মামুন। দুই বছর থেকে তিনি এ কাজটি করছিলেন। মামুন বাজার দামের চেয়ে ৫০ টাকা কমে এসব তেল বিক্রি করতেন। বুধবার হাতিরঝিলের মীরেরবাগ নতুন রাস্তা মসজিদ গলি ১৫/১ নং বাসায় ও খায়রুলের দোকানে অভিযান চালায় র‌্যাব-৩। এসময় তাকে হাতেনাতে আটক করা হয়। পরে পোড়া তেল ও মবিল পুনরায় প্রক্রিয়াজাত করে খাবার তেল হিসেবে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে বিক্রয়ের অভিযোগে দুই বছরের কারাদণ্ড দেয় আদালত। আদালত পরিচালনা করেন র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসু। আরো পড়ুনঃ আবারও লকডাউনে ইতালি নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জানায়, রাজধানীর বিভিন্ন রেস্তোরাঁ ও চাইনিজ রেস্টুরেন্টে খাদ্য সামগ্রী তৈরিতে বিপুল পরিমাণ তেল ব্যবহৃত হয়, যা পরবর্তীতে অল্প দামে ক্রয় করতেন অভিযুক্ত খায়রুল ইসলাম মামুন। এসব তেল প্রক্রিয়াজাতের মাধ্যমে খাবার তেল হিসেবে তৈরি ও বিক্রি করতেন। আর এই কাজটি তিনি গত দুই বছর থেকেই করে আসছিলেন। তিনি প্রতি লিটার ৫০ টাকায় এসব তেল বিক্রি করতেন। এসব তেলের গ্রাহক ছিলেন নিম্ন শ্রেণির লোকজন। তারা না বুঝে সস্তা হওয়ার কারণে কিনতেন। এসব তেল স্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর অভিযানের সময় তার দোকান থেকে সাড়ে ৪ হাজার লিটার পোড়া মবিল ও তেল জব্দ করা হয়। তার প্রক্রিয়াজাত করা কারখানাটি সিলগালা করা হয়েছে। পাশাপাশি প্রতিষ্ঠানের মালিক ইসলাম মামুনকে ২ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রমমাণ আদালত।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার এবং লাইক করুন..
visitor counter
All rights reserved © 2021 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
Translate »