শিরোনামঃ
সোনারগাঁ আনন্দবাজারের ঝুঁকিপূর্ণ বেইলি ব্রিজ স্থায়ী সেতু নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন এমপি খোকা  নরসিংদীতে শিবপুরে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দেয়ার অভিযোগ ৫ সন্তানের বাবাকে পেতে শরীরে পেট্রোল ঢেলে আগুন প্রেমিকার! সাংবাদিক মাসুদের বিরুদ্ধে সেই দুর্ণীতিবাজ প্রধান শিক্ষকের জিডি নরসিংদীতে আখের চাহিদা ও দাম বেশি হওযায আখ চাষিদের মুখে সাফল্যের হাসি ফুটেছে আধুনিকতার ছোঁয়ায় হারিয়ে যাচ্ছে লাঙ্গল দিয়ে হাল চাষ ইলিশ ধরা বন্ধ থাকবে ৪ অক্টোবর থেকে ২২ দিন শিশু সন্তানকে হত্যার পর মায়ের আত্মহত্যা নরসিংদীতে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পাশে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করে কোটি টাকার বাণিজ্য ধানের ব্যাকটেরিয়াজনিত পাতা পোড়া রোগ

নরসিংদীতে মেঘনা নদীতে সাঁতরে ১৫ কিলোমিটার পাড়ি দিলেন বৃদ্ধ


ফটো-সাইফুল ইসলাম রুদ্র

সাইফুল ইসলাম রুদ্র, নরসিংদী জেলা প্রতিনিধি: নরসিংদীর মেঘনা নদীতে টানা প্রায় চার ঘণ্টা সাঁতরে ১৫ কিলোমিটার দূরের গন্তব্যে পৌঁছালেন শহিদুল ইসলাম নামে ৬৩ বছরের এক কৃষক। সোমবার সকাল ৮টায় রায়পুরার মনিপুরা ঘাট থেকে সাঁতার শুর করে দুপুর ১২টার দিকে নরসিংদী শহরের থানার ঘাটে এসে পৌঁছান তিনি। এ সময় তাঁকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান গ্রামবাসী ও স্থানীয় লোকজন। শখের সাঁতার শহিদুল ইসলাম পেশায় একজন কৃষক।

তিনি রায়পুরা উপজেলার আমিরগঞ্জ ইউনিয়নের বালুয়াকান্দি গ্রামের বাসিন্দা। স্থানীয়রা জানান, সম্প্রতি বকুল সিদ্দিকী নামের এক পল্লী চিকিৎসক কিশোরগঞ্জের ভৈরব থেকে সাঁতরে রায়পুরার মনিপুরা ঘাটে আসেন। ওই দিন টানা সাত ঘণ্টা মেঘনা নদীতে সাঁতার কেটে প্রায় ৪২ কিলোমিটার নদীপথ পাড়ি দিয়েছিলেন মধ্যবয়সী ওই ব্যক্তি। এ থেকে উদ্বুদ্ধ হয়ে বৃদ্ধ কৃষক শহিদুল ইসলামও সিদ্ধান্ত নেন সাঁতরে মেঘনা নদী পাড়ি দেবেন।

শহিদুল তাঁর তার গন্তব্য নির্ধারণ করেন রায়পুরার মনিপুরা ঘাট থেকে ১৫ কিলোমিটার দূরত্বের নরসিংদী শহরের থানার ঘাট। গ্রামবাসীও ঘোষণা দেয়, মেঘনা নদীতে সাঁতরে এই দূরত্ব পার হয়ে গন্তব্যে পৌঁছতে পারলে তাকে দেড় লক্ষাধিক টাকা পুরস্কার দেওয়া হবে। শহিদুলও এতে রাজি হয়ে ঘোষণা দেন, পুরস্কার হিসেবে প্রাপ্ত এই টাকা তিনি বাড়ির পাশে নির্মাণাধীন মসজিদে দান করবেন। ওই দিনই সাঁতারের দিনক্ষণ নির্দিষ্ট করা হয়। ঘোষণা অনুযায়ী গতকাল সোমবার সকাল ৮টায় রায়পুরা উপজেলার হাইরমারা ইউনিয়নের মনিপুরা ঘাট থেকে শহিদুল সাঁতার শুর করেন।

তিনি নদীপথে সাঁতরে নরসিংদী শহরের থানার ঘাট যাচ্ছেন, বিষয়টি অনেকেই জেনে যান। সাঁতার শুর হতেই বেশ কয়েকটি ইঞ্জিনচালিত নৌকায় করে স্থানীয় লোকজন দর্শক হিসেবে তাঁর সঙ্গী হন। নৌকাগুলো শহিদুলের সঙ্গে গন্তব্য নরসিংদী শহরের থানার ঘাটে এসে পৌঁছায়। সেখানে এই সাঁতারকে স্বাগত জানাতে অপেক্ষা করছিল কয়েক শ মানুষ। খেয়াঘাট এলাকায় তিনি পৌঁছাতেই উৎসবমুখর পরিবেশ সৃষ্টি হয়। করতালি দিয়ে অপেক্ষমাণ মানুষ শহিদুলকে স্বাগত জানায়।

এ সময় তাকে ফুলের মালা পড়িয়ে দেওয়া হয়। ইঞ্জিনচালিত নৌকায় করে সঙ্গে আসা কাউসার আহমেদ নামের একজন জানান, সাঁতার শুরর সময় থেকে শেষ পর্যন্ত আমি নৌকায় করে তাঁর পাশাপাশিই ছিলাম। প্রথমে ভেবেছিলাম, বয়স্ক মানুষ তো, হয়তো মাঝপথে হাল ছেড়ে দিয়ে নৌকায় উঠে যাবেন। কিন্তু প্রায় চার ঘণ্টা একটানা সাঁতরে ১৫ কিলোমিটার দূরের গন্তব্যে পৌঁছে গেছেন তিনি। এই বয়সেও ভালো দম আছে তাঁর।

সাঁতারশহিদুল ইসলাম জানান, মেঘনা নদী সাঁতরে পাড়ি দেওয়ার ইচ্ছাটা পূরণ হয়েছে ভেবে ভালো লাগছে। মাঝপথে সমস্যা হলে আমাকে উদ্ধারের জন্য বেশ কিছু নৌকাও প্রস্তুত রেখেছিল গ্রামবাসী। গন্তব্যে পৌঁছার পর মনে হয়েছে আরও সাঁতরাতে পারতাম। পুরস্কার হিসেবে ঘোষণা করা দেড় লক্ষ টাকা হাতে পেলে আমি স্থানীয় মসজিদের নির্মাণকাজে দান করে দেব।

হাইরমারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাহফুজুল হক বাবলা জানান, শহিদুল ইসলাম নামের একজন ৬৩ বছর বয়সী বৃদ্ধ আমাদের মনিপুরা ঘাট থেকে সাঁতার কেটে নরসিংদী শহরের থানার ঘাট যাওয়ার বিষয়টি আমি জেনেছি। চার ঘণ্টা একটানা সাঁতার কেটে প্রায় ১৫ কিলোমিটার দূরত্ব পাড়ি দেওয়ায় আমি তাকে অভিনন্দন জানাই। তবে এই ধরণের উদ্যোগে নানা ঝুঁকির আশঙ্কা থাকে, তাই স্থানীয় প্রশাসনকে অবহিত করে এমন আয়োজন করা উচিৎ।

লাইক ও শেয়ার করে পাশে থাকুন..........
All rights reserved © 2021 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
Translate »