ক্যাপিটল হিলে যুদ্ধের প্রস্তুতি নিয়ে এসেছিল দাঙ্গাবাজরা

ক্যাপিটল হিলে যুদ্ধের প্রস্তুতি নিয়ে এসেছিল দাঙ্গাবাজরা


ফটো-সংগৃহীত

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ যুক্তরাষ্ট্রের ক্যাপিটল হিলে গত ৬ জানুয়ারির হামলার আগে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা সিনিয়র কর্মকর্তারা ওই হামলার জন্য গোয়েন্দা ব্যর্থতাকে দায়ী করেছেন।

সিনেট কমিটিতে সাক্ষ্য দেওয়ার সময় তারা বলেন, দাঙ্গাকারীরা অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে যুদ্ধের প্রস্তুতি নিয়ে এসেছিল। খবর বিবিসির।

ডোনাল্ড ট্রাম্পপন্থি বিক্ষোভকারীদের কংগ্রেস ভবনে ওই হামলার ঘটনায় অন্তত পাঁচজন নিহত হয়েছিল। ওই হামলার পর পদত্যাগ করা চার কর্মকর্তার মধ্যে তিনজন মঙ্গলবার হোমল্যান্ড সিকিউরিটি ও গভর্নমেন্ট অ্যাফেয়ার্স কমিটিতে সাক্ষ্য দেন।

ওয়াশিংটন ডিসি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত প্রধান রবার্ট কোন্তে আইনপ্রণেতাদের বলেছেন, দাঙ্গাকারীদের দমনে পেন্টাগন থেকে ন্যাশনাল গার্ড ট্রুপস মোতায়েনে এত বেশি সময় লেগেছিল, যা তাকে বিস্মিত করেছে।

ডেমোক্র্যাটরা ওই হামলায় উসকানি দেওয়ার জন্য ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসনের উদ্যোগ নিয়েছিল। পরে সিনেটে দুই-তৃতীয়াংশ ভোট না থাকায় ট্রাম্প শাস্তি থেকে রেহাই পেয়ে যান।

ক্যাপিটল পুলিশের সাবেক প্রধান স্টিভেন সান্ড বলেন, ক্যাপিটল হিল থেকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে দূরে রাখার জন্য পাইপ বোমা রাখা হয়েছিল।

দাঙ্গাকারী গ্রুপ যখন সিকিউরিটি এরিয়ায় আসে, তারা অন্য সাধারণ প্রতিবাদকারীর মতো করে আসেনি। তিনি বলেন, এমন দাঙ্গার প্রস্তুতি নিয়ে আন্দোলন আর কখনই দেখিনি আমি।

তিনি বলেন, ফেডারেল এজেন্সিগুলোর মধ্যে সমন্বিত ও পূর্ণাঙ্গ গোয়েন্দা তথ্যের ঘাটতি ছিল। ক্যাপিটল পুলিশ ক্যাপ্টেন কারনেসা মেনডজা কমিটিতে বলেন, তার মুখে রাসায়নিক দ্রব্য ছুড়েছিল হামলাকারীরা, যা থেকে এখনও তিনি সেরে ওঠেননি।

তিনি আরও বলেন, একসঙ্গে এত কিছু হয়েছে যে, আমার ১৯ বছরের ক্যারিয়ারে এটিই ছিল সবচেয়ে ভয়াবহ ঘটনা। তিনি মনে করেন, এ সময় নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে আরও অন্তত ১০ গুণ লোকবল থাকা দরকার ছিল।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার এবং লাইক করুন..
visitor counter
All rights reserved © 2021 দেশের গর্জন | Desher Garjan
Design & Developed BY Subrata Sutradhar
Translate »